রামগঞ্জে শতাধিক লাশ দাফন করে আলোচনায় করোনাযোদ্ধা শিক্ষক সেলিম

রামগঞ্জ(লক্ষীপুর)প্রতিনিধি ঃ
করোনা মহামারীর দূর্যোগ মুহুর্তে লক্ষীপুরের রামগঞ্জ উপজেলায় শতাধিক লাশ দাফন করে ব্যাপক প্রশংসা ও আলোচনায় করোনা যোদ্ধা মানবিক শিক্ষক সেলিম হোসেন। চারদিকে যখন করোনায় আক্রান্ত রোগীর স্বজনরা অক্সিজেনের জন্য হাহাকার ঠিক তখনই রামগঞ্জ উপজেলায় করোনায় আক্রান্তদের পাশে নোয়াখালী পুলিশ অক্সিজেন ব্যাংক ও ট্যাক্স টাউন গ্রুপ এর সহয়তায় অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে করোনায় আক্রান্ত সেবা গ্রহীতাদের পাশে দাঁড়ালেন রামগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেন।
এছাড়াও করোনা প্রাদুর্ভাব শুরু থেকে কোথাও করোনা কিংবা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হলে লাশের গোসল, জানাজা ও দাফন নিয়ে বিপাকে পড়েন পরিবারের লোকজন। প্রতিবেশীদের চাপের মধ্যে গৃহবন্দীও হয়েছেন মৃত ব্যক্তির স্বজনরা। লাশ নিয়ে দুর্বিষহ রাত কাটাতে হয়েছে তাদের। লাশ দাফন না করানোর জন্যও হুশিয়ারি দেওয়া হয় মৃতের পরিবারকে। লাশ বহণের খাট নিয়েও শুরু হয় হয়রানি। এ অবস্থায় রোদ, বৃষ্টি, ঝড়সহ নানা প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে তাদের পাশে দাঁড়িয়ে উপজেলার পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেনের নেতৃত্বে ৫জন সদস্য কাজ করছেন রামগঞ্জ উপজেলা লাশ দাফনের কার্যক্রমে। এ পর্যন্ত তারা করোনা কিংবা উপসর্গে মৃত শতাধিক লাশের দাফন কাজ সম্পুর্ন করেছেন।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা লাশ দাফন কমিটির সভাপতি পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেন বলেন, আমরা করোনা উপস্বর্গ নিয়ে মারা যাওয়া প্রায় শতাধিক মৃত ব্যাক্তির লাশ দাফন করেছি। যেখানেই করোনা আক্রান্ত রোগী শ্বাসকষ্ট ভুগছেন আমরা খবর পাওয়া মাত্রই সেখানে গিয়ে অক্সিজেন সেবা দিয়ে আমাদের সাধ্যমত চেষ্টার মাধ্যমে সাহায্য করার জন্য এবং যেখানে মানুষ লাশ দাফন করতে পারছে না, অনেকে ভয়ে জানাজায় আসছেন না আমরা করোনা শুরু থেকেই তাদের পাশে থেকে ওই লাশ দাফনের মধ্যদিয়ে আমাদের সেবা অব্যাহত রেখেছি।

Share Button

সর্বশেষ আপডেট



» চাটখিলে জমি আছে ঘর নেই, প্রতিবন্ধী কার্ড আছে কিন্তু ভাতা নেই!

» সোনাইমুড়িতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে একই পরিবারের ৪জনের মৃত্যু

» ঢাকাস্থ নোয়াখালী জার্নালিস্ট ফোরাম’র নির্বাচন প্রস্তুতি কমিটি

» হাতিয়ার ভাসানচর থেকে পালাতে গিয়ে আটক ১৮ রোহিঙ্গা

» বেগমগন্জে ১০ টাকার জন্য রিকশা চালককে কুপিয়ে হত্যা

» লক্ষ্মীপুরে ডেঙ্গু জ্বরে যুবক সাইফুলের মৃত্যু

» নোয়াখালী সদরে মাদক ব্যবসার নিয়ন্ত্রণে গোলাগুলি,গুলিবিদ্ধ-১

» দক্ষিণ আফ্রিকায় ফেনীর যুবককের মৃত্যু

» চাটখিলে রামনারায়নপুর স্কুলের শিক্ষকের স্মরনে সভা ও দোয়া অনুষ্ঠিত

» বন্ধুর সাথে বেড়াতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার গৃহবধূ, গ্রেফতার-১

ফেইসবুকে প্রিয় নোয়াখালী

সম্পাদক ও প্রকাশক:: কামরুল ইসলাম কানন।
যোগাযোগ:: ০১৭১২৯৮৩৭৫১।
ইমেইল kanon.press@gmail.com
Desing & Developed BY Trust soft bd
,

রামগঞ্জে শতাধিক লাশ দাফন করে আলোচনায় করোনাযোদ্ধা শিক্ষক সেলিম

রামগঞ্জ(লক্ষীপুর)প্রতিনিধি ঃ
করোনা মহামারীর দূর্যোগ মুহুর্তে লক্ষীপুরের রামগঞ্জ উপজেলায় শতাধিক লাশ দাফন করে ব্যাপক প্রশংসা ও আলোচনায় করোনা যোদ্ধা মানবিক শিক্ষক সেলিম হোসেন। চারদিকে যখন করোনায় আক্রান্ত রোগীর স্বজনরা অক্সিজেনের জন্য হাহাকার ঠিক তখনই রামগঞ্জ উপজেলায় করোনায় আক্রান্তদের পাশে নোয়াখালী পুলিশ অক্সিজেন ব্যাংক ও ট্যাক্স টাউন গ্রুপ এর সহয়তায় অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে করোনায় আক্রান্ত সেবা গ্রহীতাদের পাশে দাঁড়ালেন রামগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেন।
এছাড়াও করোনা প্রাদুর্ভাব শুরু থেকে কোথাও করোনা কিংবা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হলে লাশের গোসল, জানাজা ও দাফন নিয়ে বিপাকে পড়েন পরিবারের লোকজন। প্রতিবেশীদের চাপের মধ্যে গৃহবন্দীও হয়েছেন মৃত ব্যক্তির স্বজনরা। লাশ নিয়ে দুর্বিষহ রাত কাটাতে হয়েছে তাদের। লাশ দাফন না করানোর জন্যও হুশিয়ারি দেওয়া হয় মৃতের পরিবারকে। লাশ বহণের খাট নিয়েও শুরু হয় হয়রানি। এ অবস্থায় রোদ, বৃষ্টি, ঝড়সহ নানা প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে তাদের পাশে দাঁড়িয়ে উপজেলার পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেনের নেতৃত্বে ৫জন সদস্য কাজ করছেন রামগঞ্জ উপজেলা লাশ দাফনের কার্যক্রমে। এ পর্যন্ত তারা করোনা কিংবা উপসর্গে মৃত শতাধিক লাশের দাফন কাজ সম্পুর্ন করেছেন।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা লাশ দাফন কমিটির সভাপতি পশ্চিম শোশালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ সেলিম হোসেন বলেন, আমরা করোনা উপস্বর্গ নিয়ে মারা যাওয়া প্রায় শতাধিক মৃত ব্যাক্তির লাশ দাফন করেছি। যেখানেই করোনা আক্রান্ত রোগী শ্বাসকষ্ট ভুগছেন আমরা খবর পাওয়া মাত্রই সেখানে গিয়ে অক্সিজেন সেবা দিয়ে আমাদের সাধ্যমত চেষ্টার মাধ্যমে সাহায্য করার জন্য এবং যেখানে মানুষ লাশ দাফন করতে পারছে না, অনেকে ভয়ে জানাজায় আসছেন না আমরা করোনা শুরু থেকেই তাদের পাশে থেকে ওই লাশ দাফনের মধ্যদিয়ে আমাদের সেবা অব্যাহত রেখেছি।

Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



web-ad

সর্বশেষ আপডেট





সম্পাদক ও প্রকাশক:: কামরুল ইসলাম কানন।
যোগাযোগ:: ০১৭১২৯৮৩৭৫১।
ইমেইল kanon.press@gmail.com

Developed BY Trustsoftbd